শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ০২:২৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শিরোনাম :
আশেপাশের ওয়ার্ড গুলোতে পানি নিস্কাশন ব্যবস্থা থাকলেও পৌর ১৪ নং ওয়ার্ডে এই দুর্ভোগ চরমে ফেইসবুকে পোস্ট দেখে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন ভোলা ২ আসনের সংসদ আলী আজম মকুল কুমারখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সালাউদ্দিন খান তারেকের নিজ অর্থায়নে ১ টি কন্সেনট্রেটর উপহার দিলেন খোকসায় করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে সহকারী কমিশনার (ভূমি) ইসাহক আলী’র ভুমিকা প্রশংসনীয় খোকসায় প্রধান মন্ত্রীর উপহার সামগ্রী বিতরণ করলেন এমপি ব্যারিষ্টার সেলিম আলতাফ জর্জ সাম্প্রদায়িক শক্তি, ঘুষ, দুর্নীতির বিরুদ্ধে রুখে দাড়াও-এ্যাড. জয়দেব কুমারখালীতে তৃতীয় লিঙ্গের মানুষের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর উপহার সামগ্রী বিতরণ করলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা খোকসায় তাসফিয়া নামের এক শিশু পানিতে ডুবে মৃত্যূ কুষ্টিয়ায় নকল কসমেটিকস কারখানায় অভিযানঃজরিমানা আদায় ০২ লাখ টাকা কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে আওয়ামীলীগের দুগ্রুপের সংঘর্ষ

যে ভাবে মুক্ত হলেন আল্লামা মামুনুল হক

নিজস্ব প্রতিবেদক / ২১৮ বার পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : রবিবার, ৪ এপ্রিল, ২০২১, ৭:৫৯ পূর্বাহ্ন

বিদ্রোহী চোখ ডেস্ক রিপোর্টঃ সোনারগাঁওয়ে একটি রিসোর্টে অবরুদ্ধ হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হক মুক্ত হয়েছেন। শনিবার (৩ এপ্রিল) বিকেল ৩টায় রয়াল রিসোর্টের ৫ম তালার ৫০১ নম্বর কক্ষে তাকে অবরুদ্ধ করা হয়। পরে পুলিশ গিয়ে তাকে উদ্ধার করে।

সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় মুক্ত হয়ে তিনি বলেন, আপনাদের ভালোবাসার জন্য আমি কৃতজ্ঞ। সাংবাদিক ও পুলিশ আমার সঙ্গে কোনো খারাপ আচরণ করেনি। কিছু বাইরের লোক খারাপ আচরণ করেছে। আমি আমার দ্বিতীয় স্ত্রীকে নিয়ে এখানে ঘুরতে এসেছিলাম।
মামুনুল হকের দাবি, সঙ্গে থাকা নারীর নাম আমিনা তৈয়ব। তিনি মামুনুল হকের দ্বিতীয় স্ত্রী। আমিনাকে সঙ্গে নিয়ে রিসোর্টে ঘুরতে গিয়েছিলেন তিনি।

এদিকে নারায়ণগঞ্জের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জায়েদুল আলম গণমাধ্যমকে জানান, মামুনুল হক নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও থানাধীন রয়েল রিসোর্টের একটি কক্ষে নারীসহ অবস্থান করছেন- এমন খবরে স্থানীয় লোকজন রিসোর্ট ঘেরাও করে। পরে খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে যায়। মামুনুল হক পুলিশকে জানিয়েছেন, সঙ্গে থাকা নারী তার দ্বিতীয় স্ত্রী। পরে পুলিশ তাকে নিরাপত্তা দিয়ে সেখান থেকে উদ্ধার করেছে।

স্থানীয় পুলিশ জানায়, মামুনুল হক সকালে রয়েল রিসোর্টের ৫০১ নম্বর কক্ষটিতে ওঠেন। দুপুর থেকেই এলাকায় চাউর হয় মামুনুল হক এক নারীসহ রিসোর্টে অবস্থান করছেন। এ খবরে এলাকার লোকজন রিসোর্টটি ঘেরাও করে।

সোনারগাঁও থানার পরিদর্শক (তদন্ত) তবিদ রহমান সন্ধ্যায় গণমাধ্যমকে জানান, আমরা মামুনুল হকের সঙ্গে কথা বলছি। তার নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয়েছে।

মামুনুল হকের রাজনৈতিক দল বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস। এ দলের সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আতাউল্লাহ আমিন গণমাধ্যমকে বলেন, অনেকদিন ধরেই মাওলানা মামুনুল হকসহ হেফাজতের নেতাদের বিষয়ে ষড়যন্ত্র চলছে। নানামুখী এ ষড়যন্ত্রের মধ্যে আজকের এ ঘটনাটিও ষড়যন্ত্র কিনা, আমরা দলীয়ভাবে তা খতিয়ে দেখব। ঘটনাটি আমরা মাত্র কয়েক মিনিট আগে শুনেছি, আমাদের নারায়ণগঞ্জ জেলার দায়িত্বশীলরা ঘটনাস্থলে যাচ্ছেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Comments are closed.

এ জাতীয় আরো খবর ....
এক ক্লিকে বিভাগের খবর